১৪ ফেব্রুয়ারি পুলওয়ামা জঙ্গি হামলার সময় ঠিক কী ঘটেছিল ?

0

২০১৯ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি জম্মু শ্রীনগর জাতীয় মহাসড়কে নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের বহনকারী একটি গাড়িকে ভারতের জম্মু ও কাশ্মীর রাজ্যের পুলওয়ামা জেলার লেথপোরায় (আবন্তিপোরারের কাছে) স্করপিও গাড়ি দ্বারা আত্মঘাতী বোমা হামলা করে সন্ত্রাসবাদীরা।

 এই হামলার ফলে ৪৮ জন সেন্ট্রাল রিজার্ভ পুলিশ ফোর্স (সিআরপিএফ) কর্মীর এবং আক্রমণকারীর মৃত্যু ঘটে। এই হামলার দায় পাকিস্তান-ভিত্তিক ইসলামী জঙ্গি গোষ্ঠী জইশ-ই-মুহাম্মদ স্বীকার করেছে।

প্রাথমিক অনুসন্ধানের সুপারিশ অনুসারে গাড়ীতে ৩০০ কিলোগ্রাম (৬৬০ পাউন্ড) বিস্ফোরক, সহ ৮০ কিলোগ্রাম (১৮০ পাউন্ড) আরডিএক্স ছিল, যা একটি উচ্চ বিস্ফোরক।

উরির থেকেও ভয়ঙ্কর জঙ্গি হানা কাশ্মীরে। জম্মু থেকে শ্রীনগর যাওয়ার পথে অবন্তীপুরার লেটাপোরার কাছে একটি গাড়ি কনভয়ে ঢুকে বিস্ফোরণ ঘটায়। হামলার দায় স্বীকার করেছে জইশ-এ-মহম্মদ। জঙ্গিহানার ভয়াবহ ছবি দেখে শিউরে উঠছে গোটা দেশ।এই দিনের ঘটনা ফিরিয়ে এনে দিয়েছিলো দু’বছর আগের পুরোনো উরির স্মৃতি কথা।

পুলওয়ামার অবন্তীপুরার কাছে কনভয় পৌঁছতেই, উলটো দিক থেকে একটি এসইউভি গাড়ি কনভয়ের কাছাকাছি চলে আসে। তারপরেই ঘটে ভয়াবহ বিস্ফোরণ। পাশেই ছিল চুয়ান্ন নম্বর ব্যাটেলিয়নের বাস। বিস্ফোরণে উড়ে যায় জওয়ানদের বাসটি।

হামলার জেরে বহু জওয়ানের ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয়। রক্তাক্ত রাজপথ। বিস্তীর্ণ এলাকা জুড়ে ছড়িয়ে ছিটিয়ে জওয়ানদের দেহাংশ, গাড়ির যন্ত্রাংশ। শ্রীনগর-অনন্তনাগ হাইওয়ে তখন যেন যুদ্ধক্ষেত্র। ঘটনার আকস্মিকতা কাটিয়ে দ্রুত উদ্ধার কাজে নামেন জওয়ানরা। আহতদের তড়িঘড়ি শ্রীনগর সেনা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।