আগামী ২১ জুন ফের জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণ দেবেন মোদী

0

রাজীব ঘোষঃ– আগামী 21 জুন জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণ দিতে চলেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। দেশজুড়ে করোনার সংক্রমণ লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। আনলক এক শুরু হতেই মানুষের স্বাভাবিক জীবনযাত্রা চলার ফলে করোনার সংক্রমণ বৃদ্ধি পাচ্ছে। করোনা সংক্রমনের এই ঊর্ধ্বমুখী রেখাচিত্র কিভাবে নিয়ন্ত্রণে আনা যায় সেই বিষয়ে পর্যালোচনা করার জন্য দুই দিন ধরে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বিভিন্ন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের শীর্ষস্থানীয় আমলাদের সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বৈঠক করেছেন।

মহারাষ্ট্র, দিল্লি সহ বেশ কয়েকটি রাজ্যে করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধির ফলে স্বাস্থ্য পরিকাঠামো সংকটের মধ্যে পড়েছে। এই বিষয়ে বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ নিচ্ছে কেন্দ্র। সমস্ত রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী দের কাছ থেকে মতামত জানার পরে কোনো পদক্ষেপ গ্রহণ করতে পারেন মোদি। সূত্রের খবর, লকডাউন এর বিষয়ে ভাবনা চিন্তা চলছে।

তবে এ সম্পর্কে এখনো পর্যন্ত কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। আগামী 21 জুন আন্তর্জাতিক যোগ দিবস। প্রতিবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী সাধারণ মানুষের সঙ্গে মিশে যোগ দিবস পালন করেন। সেখানে তিনি নিজেও যোগাভ্যাস করেন। শুধু প্রধানমন্ত্রী নয়, বিজেপির অন্যান্য মন্ত্রী, সাংসদ এবং নেতারা এই যোগ দিবসে অংশগ্রহণ করেন। তবে এবার করোনা আবহের জন্য সমস্তটাই ভার্চুয়াল মাধ্যমে হতে পারে বলে জানা যাচ্ছে।

করোনা সংক্রমণ রুখতে যোগ এবং শরীর চর্চার যে উপকারিতা রয়েছে সেই দিকটিও বলতে পারেন মোদি। শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর জন্য যোগাসন করার বিষয়ে বার্তা দিতে পারেন মোদি। অন্যদিকে, ভারত-চীন সীমান্তে লাদাখে দুই দেশের সেনাবাহিনীর মধ্যে লড়াইয়ে কুড়িজন ভারতীয় সেনা জওয়ান নিহত হয়েছেন। ফলে ভারত চীন সীমান্তের উত্তেজনাপূর্ণ পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে।

দেশের এই উদ্বেগজনক পরিস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি কোনো বার্তা দেন কিনা দেশবাসীর উদ্দেশ্যে সেটাও জানতে চাইছে দেশের মানুষ। কারণ দেশের সেনা জওয়ান এর শহীদ হওয়ার পর থেকে সারাদেশ প্রত্যাঘাত এবং প্রতিশোধের আগুনে ফুঁসছে। ফলে 21 জুন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণ যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করা হচ্ছে।