‘মাদক সেবন করি না, ক্ষিতিজের সঙ্গে আমার কোনও সম্পর্ক নেই’ : করণ জোহর

0

সমাচার ডেস্ক: সুশান্ত সিং রাজপুত এর মৃত্যুর পর আমাদের সামনে উঠেছে মাদকচক্রের কথা আর সেই মাদকচক্রের উঠে আসে একাধিক বলিউড অভিনেতা অভিনেত্রীর নাম। এবারে উঠে এসেছে বলিউডের ধর্ম প্রোডাকশন হাউজের কথা।

ধর্মা প্রোডাকশনের এগজিকিউটিভ প্রোডিউসার ক্ষিতিজকে এই বিষয়ে দীর্ঘ সময় ধরে জেরা করেছে নার্কোটিকস কনট্রোল ব্যুরো। ক্ষিতিজকে আটক করার পর এবার মুখ খুলেছেন পরিচালক-প্রযোজক করণ জোহর। সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পর তাঁর দিকে অভিযোগের আঙুল ওঠায় সোশ্যাল মিডিয়া থেকে নিজেকে এক্কেবারে দূরে সরিয়ে নিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু মাদক-যোগে তাঁর নাম জড়িয়ে পড়ায় ফের প্রকাশ্যে এলেন করণ।

ট্যুইট করে তিনি জানান, ‘আমি একটা কথা স্পষ্ট করে দিতে চাই। বেশ কিছু মিডিয়া এবং নিউজ চ্যানেল দেখাচ্ছে ক্ষিতিজ প্রসাদ এবং অনুভব চোপড়া আমার ঘনিষ্ঠ সহকর্মী। আমি অন রেকর্ড জানাতে চাই এঁদের কাউকে আমি ব্যক্তিগতভাবে চিনি না, এঁরা কেউই আমার ঘনিষ্ঠ নন। এঁরা ব্যক্তিগত জীবনে কী করবেন তার জন্যে কোনওভাবেই আমাকে বা ধর্মা প্রোডাকশনকে দায়ী করা যায় না।’ করণ জোহরের কথায় অনুভব চোপড়া ধর্মা প্রোডাকশনের সঙ্গে মাত্র ২ মাস কাজ করেছেন সেকেন্ড অ্যাসিসটেন্ট ডিরেক্টর হিসেবে ২০১১ সালের নভেম্বর থেকে ২০১২ সালের জানুয়ারি পর্যন্ত। এবং পরবর্তী সময়ে ২০১৩ সালে একটি শর্ট ফিল্মের সহ-পরিচালক হিসেবে। শুক্রবার তাঁকেও জেরার জন্যে ডেকে পাঠায় নার্কোটিকস কনট্রোল ব্যুরো।

বিবৃতিতে করণ জোহর এও জানান, তিনি কোনওদিন মাদক সেবন করেননি এবং এই চক্রের সঙ্গে কোনওভাবেই যুক্ত নন। মিডিয়া চ্যানেলগুলিকে তাঁর হুঁশিয়ারি, এখনই তাঁর সম্পর্কে এই মিথ্যে রটনা বন্ধ না করলে তিনি আইনি পদক্ষেপ করতে বাধ্য হবেন।

সূত্র মারফত জানা যায় বলিউডের 50 জন অভিনেতা-অভিনেত্রীর নাম আছে, এদের মধ্যে কিছু প্রথম সারির অভিনেতা যারা পার্টির আয়োজন করত তাদের যোগাযোগ রয়েছে ক্রিকেট দুনিয়া র  সঙ্গে।