রাজনীতিতে আসার কথা বলতে পারছিনা, তবে সাধারণ মানুষকে সাহায্য করাই আমার মূল উদ্দেশ্য থাকবে: সোনু সুদ

0

সমাচার ডেস্ক: লকডাউনে বাইরে থাকা পরিযায়ী শ্রমিক বাড়ি যেতে না পারলে সনু সুদ নিজের অর্থ ব্যয় করে তাদের বাড়ি পৌঁছে দেয়ার ব্যবস্থা করেছিল এর ফলে সাধারণ মানুষের চোখে সোনু সুদ হয়েছিল ভগবান তুল্য।গরিব, অসহায় মানুষদের জন্য সাহায্যের হাত বাড়িয়ে তিনি অর্জন করতে পেরেছেন  জনতার ভালবাসা ও প্রসংশা।

শ্যুটিং ফ্লোরে ফিরলেন সোনু সুদ৷ সেখানে কলাকুশলীরা হাততালি দিয়ে তাঁকে স্বাগত জানান৷ ইতিমধ্যেই রাষ্ট্রসংঘের এক বিশেষ পুরস্কারও পেয়েছেন তিনি৷ ইউএনডিপির (UNDP) স্পেশ্যাল হিউনম্যানিটেরিয়ান অ্যাকশন অ্যাওয়ার্ডে ভূষিত তিনি৷ হয়েছে লকডাউনের সময় পরিযায়ী শ্রমিকদের জন্য তাঁর কাজ বিশেষ ভাবে উল্লেখ যোগ্য৷ তাই তো সকলেই এখন সোনুকে বাহবা দিচ্ছেন৷ পর্দার নয়, বাস্তবের হিরো তিনি৷

গরিব মানুষের সহায়তায় করে তিনি যে সম্মান অর্জন করেছেন তা তিনি নিজের ইচ্ছা থেকেই করেছেন। এর পেছনে অন্য কোনো কারণ ছিলেন না স্পষ্ট জানিয়েছেন সনু সুদ।

সোনু সুদের কথায়, অনেকে ভাবছেন আমি রাজনীতিতে পা দিতে চাই৷ তাই এসব করছি৷ কিন্তু তেমন নয়৷ রাজনীতিতে যোগদানের প্রস্তাব আমার কাছে অনেক আগেই ছিল৷ তবে সেই ইচ্ছে এখুণি নেই৷ জানি না ৫-১০ বছর পর কী হবে৷ রাজনীতিকদের প্রতি আমার সম্মান অগাধ৷ আমি যদি কখনও সেই পথেও হাঁটি, তাহলে সেখানে নিজের সাধ্য মতো চেষ্টা করব৷

সোনু বলছেন, যদি অন্যকে সাহায্যের ইচ্ছে থাকে, তাহলে ঠিক উপায় বেরিয়ে যায়৷ আমি যখন কাজ শুরু করি, তখন প্রথমে এক ব্যক্তি বলেন আধা বাস স্পনসর করতে চান৷ এরপর অন্য একজন পুরো বাসের দায়িত্ব নিলেন৷ এভাবে বিভিন্ন সময়, বিভিন্ন মানুষকে পাশে পেয়েছি, যারা নির্দ্বিধায় সাহায্যের হাত বাড়িয়েছেন৷ তাই, কে আমার নামে কী নিন্দা করল, সেই ব্যাপারে মাথা ঘামাইনি৷ শুধু মানুষের উপকারই করতে চেয়েছি৷