সর্বনাশ হয়ে গেছে বাংলার”- মুখ্যমন্ত্রী”বিশ্ব ত্রাস” করোনার ছোবল এর চেয়ে ভয়ানক আম্ফান?উঠছে প্রশ্ন

0

সমাচার ডেস্কঃ- করোনার প্রবল থাবা তো ছিলই, তার মাঝে নতুন করে দোসর হলো আবহাওয়ার এই খামখেয়ালীপনা আম ফান। এর দাপট। এখন পশ্চিমবঙ্গ লন্ডভন্ড যে তান্ডব লীলা দেখলো তার স্মৃতিতে থেকে যাবে।

নবান্নে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন; “উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা এবং সুন্দরবন ধ্বংস হয়ে গিয়েছে ৷ ভেঙে গিয়েছে হাজার হাজার বাড়ি”।  তিনি এই ঝড়ের ভয়াবহতা বর্ণনা করতে গিয়ে বলেন, “সর্বনাশ হয়ে গেছে বাংলার; করোনার পর আমফান; যেন মরার উপর খাঁড়ার ঘা।” বুধবার রাত নয়টায় নবান্নে; সাংবাদিক সম্মেলনে ঘূর্ণিঝড় আমফানের তাণ্ডবের ভয়াবহতা বর্ণনা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়।

দুই মেদিনীপুর সহ সুন্দরবন এলাকা বিধ্বস্ত দোকান থেকে আরম্ভ করে সমস্ত এখন বিপর্যয়ের সম্মুখীন  ভয়ঙ্কর আমফানে আতঙ্ক; দুই মেদিনীপুর জেলায়। সকালে প্রাথমিক রিপোর্ট পেয়ে দেখা যাচ্ছে; দুই জেলায় ভেঙে গেছে প্রায় ১২ হাজার কাঁচা বাড়ি। দুই মেদিনীপুরেই, বিশেষ করে পূর্ব মেদিনীপুরে হাজার হাজার কাঁচাবাড়ির ক্ষতি। টিনের চাল, খড়ের চাল, কিছুই আর আস্ত নেই; চারপাশে শুধুই ধ্বংসের ছবি ! ক্ষতি কোথায় গিয়ে দাঁড়াবে; সেই নিয়েই চিন্তায় রাজ্যের মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী।