আমফানের দাপট , কতোটা ক্ষয়ক্ষতি রাজ্যে ! আজ বৈঠক নবান্নে ! 

0

সমাচার ডেস্ক :- কলকাতায় ১৩০ কিলোমিটার গতিবেগে ক্ষয়ক্ষতি করছে সুপার সাইক্লোন আমফান । ইতিমধ্যেই তছনছ গোটা মহানগরী।  ক্ষয়ক্ষতি শীর্ষে উওর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা । জেলা গুলিতে কতোটা ক্ষয় ক্ষতি করেছে আমফান এই নিয়ে আজ রাতে বৈঠক চলবে নবান্নে ।

ইতিমধ্যেই প্রশাসন সাধারণ মানুষের সাহায্যে ৫ লক্ষ মানুষকে নিরাপদ অবস্থানে সরিয়ে নিয়ে গিয়েছে । রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন,উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগণা ধ্বংস হয়ে গেছে প্রায় স্বজনহারা পরিস্থিতি মনে হচ্ছে।

 

মমতা বলেন, খুব পরিস্থিতি খারাপ দক্ষিণবঙ্গে। এরকম পরিস্থিতির জন্য কেউ তৈরী ছিল না ।দক্ষিণবঙ্গ ৯৯.৯৯ শতাংশ শেষ হয়ে গিয়েছে ।যে সব যায়গায় হওয়ার কথা ছিল সেটা ছাড়াও অন্যান্য জেলাতেও পড়েছে।

বুধবার দক্ষিণবঙ্গে দাপট দেখিয়ে বৃহস্পতিবার ইতিমধ্যেই ঝড়-হাওয়া সহিত বৃষ্টি চলছে উওরবঙ্গে । এখনে হাওয়ার গতিবেগ ৩০-৪০ কিলোমিটার প্রতিঘন্টা । বৃহস্পতিবার সারাদিনেই এই রকম আবহাওয়া জমিয়ে থাকবে উওরবঙ্গে , এমনটি জানিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর । মূলত দুপুরের পর থেকেই উত্তরবঙ্গের জেলাগুলিতে ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে । এছাড়াও বৃষ্টির সম্ভাবনায় রয়েছে নদিয়া, মুর্শিদাবাদ । এমনকি পাহাড়েএলাকা সাকিমেও ভারী বর্ষণের সম্ভাবনা রয়েছে । এর পর ধীরে ধীরে শক্তি হারাবে আমফান ।

আমফান  রাজ্য মোকাবেলায় জাতীয় বিপর্যয় তরফে ১৯ দল রয়েছে দক্ষিণ ২৪ পরগনায় ৬ টি, কলকাতা ৪ টি,পূর্ব মেদিনীপুরে ৪টি,উত্তর ২৪ পরগনায় ৩ টি দল মোতায়েন রয়েছে । 

 ১৯৯৯ এর কথা মনে করিয়ে দিয়ে বাংলার দিকে ধেয়ে আসছে সুপার ঘূর্ণিঝড় আমফান ।রাজ্যের ৭ জেলায় প্রভাব পড়বে আমফানের ।কলকাতা, হাওড়া, হুগলি, পশ্চিম মেদিনীপুর, পূর্ব মেদিনীপুর, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা।ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলায় কন্ট্রোলরুম ফোন নম্বর হলো, ২২১৪৩৫২৬/১৯৯৫ এছাড়াও টোল ফ্রি নাম্বার ১০৭০ এই নম্বরে যোগাযোগ করতে পারবেন।